.

ডিভিএস নিরীক্ষা প্রতিবেদনের জালিয়াতি হ্রাস করবে : অর্থমন্ত্রী

ঢাকা, ১২ নভেম্বর, ২০২০ (বাসস) : অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল বলেছেন, ডকুমেন্ট ভেরিফিকেশন সিস্টেম (ডিভিএস) এর মাধ্যমে নিরীক্ষা প্রতিবেদনের সঠিকতা যাচাই সহজ হবে ও জালিয়াতি কমে আসবে। পাশাপাশি আর্থিকখাতের শৃঙ্খলা উন্নয়নের ক্ষেত্রে ভূমিকা রাখবে।
জাতীয় রাজস্ব বোর্ড (এনবিআর) ও পেশাদার হিসাববিদদের সংগঠন দ্য ইন্সটিটিউট অফ চাটার্ড একাউন্টস অফ বাংলাদেশ (আইসিএবি) যৌথভাবে ডিভিএস প্রস্তুত করেছে। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর একটি পাঁচতারকা হোটেলে অর্থমন্ত্রী ডিভিএস এর উদ্বোধন করেন।
এ উপলক্ষে আয়োজিত অনুষ্ঠানে আ হ ম মুস্তফা কামাল প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন। তিনি ভার্চুয়াল প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন।
আইসিএবির প্রেসিডেন্ট মুহাম্মদ ফারুকের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের (এনবিআর) চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম ও সদস্য মো. আলমগীর হোসেন, আইসিএবির ভাইস প্রেসিডেন্ট মোহাম্মদ ফরকান উদ্দিন প্রমূখ বক্তব্য রাখেন।
অর্থমন্ত্রী বলেন, ডিভিএস নিরীক্ষা প্রতিবেদন যাচাই প্রক্রিয়া অনেক সহজ করবে। এর মাধ্যমে এনবিআরসহ অন্যান্য নিয়ন্ত্রক সংস্থা যারা নিরীক্ষা প্রতিবেদন ব্যবহার করে, তাদের কাজ আরও সহজ হবে এবং সঠিক তথ্য জানতে পারবে।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্যে এনবিআর চেয়ারম্যান আবু হেনা মো. রহমাতুল মুনিম বলেন,এনবিআরে অনেক প্রতিষ্ঠান ভুয়া নিরীক্ষা প্রতিবেদন জমা দেয়। তথ্য গোপন রাখে। আশা করি ডিভিএস ব্যবহার করে সেটি বন্ধ করা যাবে। প্রতিবেদনের স্বচ্ছতা ও সঠিকতা যাচাই করতে পারব। আর্থিক শৃঙ্খলার জন্য সেটি অত্যন্ত জরুরি বলে তিনি মন্তব্য করেন।
এনবিআর চেয়ারম্যান আরও বলেন, নিরীক্ষা প্রতিবেদন সঠিক হলে সঠিক রাজস্ব আহরণ করা সম্ভব। রাজস্ব আয় বৃদ্ধি পেলে পেলে করপোরেট করহার কমানো যাবে বলে তিনি মনে করেন।
এনবিআর ও আইসিএবির কর্মকর্তাদের সমন্বয়ে গঠিত একটি টাস্কফোর্স কমিটি ডিভিএস প্রস্তুত করেছে।
প্রাথমিকভাবে সমস্ত অডিট ফার্ম ও আইসিএবির পেশাদার সদস্যদের তালিকাভুক্ত করা হবে। এর আওতায় প্রতিটি নিরীক্ষা প্রতিবেদন স্বাক্ষরের পূর্বে নিরীক্ষক বাধ্যতামূলক ডিভিএস থেকে একটি ডকুমেন্ট ভেরিফিকেশন কোড (ডিভিসি) গ্রহণ করবেন, যা সংশ্লিষ্ট নিরীক্ষক নিরীক্ষা প্রতিবেদন স্বাক্ষরের সময় তার নিরীক্ষা প্রতিবেদনে উল্লেখ করবেন। এনবিআরসহ যে কোন নিয়ন্ত্রক সংস্থা আইসিএবির ডিভিএস পদ্ধতিতে লগ ইন করে প্রতিবেদনের আর্থিক তথ্যাদি ও নিরীক্ষক সম্পর্কে নিশ্চিত হতে পারবেন।
এছাড়া নিয়ন্ত্রক সংস্থায় দাখিল করা প্রতিবেদনের তথ্যদি মিলিয়ে দেখতে পারবেন।

Go to Source
November 13, 2020
5:01 AM