.

লেবাননের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী হারিরি নতুন সরকারের নেতৃত্ব দিতে প্রার্থী হবেন

বৈরুত, ৯ অক্টোবর, ২০২০ (বাসস ডেস্ক): লেবাননের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী সাদ হারিরি বৃহস্পতিবার বলেছেন, বৈরুতে বিরাট বিস্ফোরণের পরে দেশটির ভেঙ্গে পড়া অর্থনীতি চাঙ্গা করার লক্ষ্যে তিনি নতুন সরকারের নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য সম্ভাব্য প্রার্থী। খবর এএফপি’র।
ফরাসী প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাক্রোঁ গত মাসে সংকট নিরসনে এক রোড ম্যাপের অংশ হিসেবে সকল রাজনৈতিক পক্ষগুলোর কাছ থেকে দ্রুত সরকার গঠনের অঙ্গীকার আদায় করেছিলেন। তবে এখনো পর্যন্ত তাঁর সে প্রচেষ্টা সফল হয়নি।
এমটিভি টেলিভিশন চ্যানেলে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে হারিরি বলেন, ‘পরবর্তি সরকারে নেতৃত্ব দেয়ার জন্য আমি অবশ্যই একজন প্রার্থী।’ তিনি বলেন, ‘আমি লেবাননের এই ভঙ্গুর অবস্থা কাটিয়ে ওঠার জন্য একমাত্র আশায় থাকার দরজাটি বন্ধ করব না।’
হারিরি বলেছেন, সকল রাজনৈতিক পক্ষ ম্যাক্রোঁর সঙ্গে ঐক্যমতে পৌঁছেছে। বিষ্ফোরণের পর ম্যাক্রোঁ দু’বার বৈরুত সফর করেছেন।
গত ৪ আগস্ট বৈরুত বন্দরে বিরাট বিস্ফোরণের পর দেশটি কয়েক দশকের মধ্যে সবচেয়ে মারাত্মক অর্থনৈতিক সঙ্কটে পড়েছে। বিষ্ফোরণে ২০০ জনেরও বেশি নিহত ও হাজার হাজার মানুষ আহত হয়।
অদক্ষ ও দুর্নীতিগ্রস্থ একটি রাজনৈতিক গোষ্ঠীর বিচারের দাবিতে গত শরতের পর তীব্র গণবিক্ষোভ ও রাস্তার আন্দোলনের মুখে প্রধানমন্ত্রী হারিরি পদত্যাগ করেছিলেন। পরবর্তিতে হাসান দিয়াবের নেতৃত্বাধীন সরকার বৈরুত বিস্ফোরণের প্রেক্ষিতে পদত্যাগ করেন।
হাসান দিয়াবের পরে গত মাসে মোস্তফা আদিব প্রধানমন্ত্রী হিসেবে মনোনীত হওয়ার মাত্র কয়েক সপ্তাহ পর শিয়ামতাবলম্বী প্রধান দুটি রাজনৈতিক দল হিজবুল্লাহ এবং আমাল অর্থ মন্ত্রণালয় তাদের নিয়ন্ত্রণে রাখতে চাওয়ায় মন্ত্রী পরিষদ গঠনে ব্যর্থ হয়ে পদত্যাগ করেন।
হারিরি বলেন, প্রতিটি রাজনৈতিক পক্ষই সরকার গঠনে সমস্যা উদ্ভাবন করতে পারে। রাজনৈতিক দলগুলি যদি সত্যিই এই অবস্থার উত্তরণ চায় তবে তাদের অবশ্যই ফরাসি উদ্যোগ অনুসরণ করা উচিত।

Go to Source
October 9, 2020
9:05 PM